কেউ ভোট লুট করতে এলেই পুকুরে ফেলে চোবান- জলপাইগুড়িতে বাম যুবদের সভায় মীনাক্ষী


তৃণমূল মাজা ভাঙা সাপ- বললেন মীনাক্ষী মুখোপাধ্যায়

জলপাইগুড়ি : “পঞ্চায়েত নির্বাচনে কেউ ভোট লুট করতে এলেই তাকে পুকুরে ফেলে চোবাবেন”- শনিবার জলপাইগুড়িতে বললেন মীনাক্ষী মুখোপাধ্যায়। সিপিএমের নতুন প্রজন্মের নেতাদের মধ্যে মীনাক্ষী অন্যতম। ডিওয়াইএফ‌আই-এর ২২তম জেলা সম্মেলন উপলক্ষে এদিন জলপাইগুড়ি সদর ব্লকের তোড়লপাড়ায় প্রকাশ্য সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় সংগঠনের রাজ্য সম্পাদক মীনাক্ষী মুখোপাধ্যায় বাম কর্মী-সমর্থকদের উদ্দেশ্যে বলেন- “সামনেই পঞ্চায়েত ভোট। আপনাদের ভোট কেউ লুট করতে এলে তাকে ধরে পুকুরে ফেলে জলে মাথা ডোবাবেন আর ওঠাবেন।”

আগামী বছরের ফেব্রুয়ারি-মার্চে রাজ্যে পঞ্চায়েত নির্বাচন হতে পারে বলে রাজনৈতিক মহলের অনুমান। শাসকদল তৃণমূলের প্রস্তুতি দেখে এই অনুমান আরও দৃঢ় হচ্ছে। তৃণমূলের পাশাপাশি বাম-বিজেপিও পঞ্চায়েত ভোটের লক্ষ্যে গা ঝাড়া দিচ্ছে। এদিকে আঠারোর পঞ্চায়েত‌ ভোটের ভয়াবহ স্মৃতি এখনও মুছে যায় নি গ্রাম বাংলার মানুষের মন থেকে। আঠারোর পঞ্চায়েত ভোট নিয়ে বিড়ম্বনায় তৃণমূল‌ও। অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় এখন থেকেই দলীয় সভায় বলতে শুরু করেছেন- পঞ্চায়েত নির্বাচন হিংসা মুক্ত রাখতেই হবে। তবে শাসকদলের আশ্বাসে বিশ্বাস রাখতে রাজি নয় বিরোধীরা। তাই কর্মীদের চাঙ্গা করতে মারকাটারি ভাষাই বেছে নিয়েছেন মীনাক্ষী।

নিয়োগ দুর্নীতি সহ একাধিক কেলেঙ্কারিতে ফেঁসে তৃণমূল নিঃসন্দেহে এই মুহুর্তে বেকায়দায়। এই পরিস্থিতিতে ঘুরে দাঁড়াতে মরীয়া বামেরা। জলপাইগুড়ির সভায় মীনাক্ষী মুখোপাধ্যায় বলেন, তৃণমূলের কোমর ভেঙে গেছে। তৃণমূলকে মাজা ভাঙা সাপের সঙ্গে তুলনা করেন তিনি। ডিওয়াইএফ‌আই-এর রাজ্য সম্পাদক মনে করেন,‌ তৃণমূল আর কোমর সোজা করে উঠে দাঁড়াবে না।

দু’দিন আগেই দলের সাংগঠনিক সভায় জেলবন্দী অনুব্রত মণ্ডলকে বীরের সম্মান দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মমতার বক্তব্যকে কটাক্ষ করে মীনাক্ষী বলেন, “অনুব্রত গ্রেফতার হওয়ার পর থেকে এখন মুখ্যমন্ত্রীর মাথায় অক্সিজেন কম যাচ্ছে তাই বিভিন্ন সভা থেকে কর্মীদের মনবল চাঙ্গা করতে অনুব্রতকে বীরের তকমা দিচ্ছেন৷”

বিজেপি বাংলা ভাগ করতে চায় বলে সভায় অভিযোগ করেন বামনেত্রী। বামেরা কোন‌ও মতেই বাংলা ভাগ হতে দেবে না বলে জানান তিনি। মীনাক্ষী বলেন, “ক্ষমতা থাকলে বাংলাকে ভাগ করে দেখাক বিজেপি।”

ভিডিও-

Video-Reporter. Feature photo credit- DYFI (WB) official FB page.


Leave a Reply

Your email address will not be published.