আগরতলায় ঘর ওয়াপসি রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়ের, ভুল বুঝিয়ে বিজেপিতে ঢোকানো হয়েছিল,তৃণমূলে ফিরে সাফাই রাজীবের


চার্টার্ড প্লেনে চড়ে দিল্লি গিয়ে অমিত শাহর হাত ধরে বিজেপিতে যোগ । ভোটে হারতেই একরাতে বিজেপির ‌ধরাচূড়া ত্যাগ । তৃণমূলে ফিরতে এন্তার কাকুতিমিনতি । রবিবার আগরতলায় পুরোনো দলে ফিরেই রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায় জানালেন – ভুল বুঝিয়ে বিজেপিতে নেওয়া হয়েছিল তাঁকে । ঝানু মন্ত্রীকেও ভুল বোঝানো রাজনীতিতে কত্ত সহজ !

আগরতলা : অবশেষে শিকে ছিঁড়ল রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়ের । নয়মাস পর ঘর ওয়াপসি ত্রিপুরায় আগরতলার মাটিতে । ৩০ জানুয়ারি রাতে অমিত শাহর বাড়িতে আরও কয়েকজনের সঙ্গে তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলেন রাজ্যের এই প্রাক্তন মন্ত্রী। চার্টার্ড প্লেনে চাপিয়ে রাজীব সহ বাকিদের দিল্লি উড়িয়ে নিয়ে গিয়েছিল বিজেপি। শুভেন্দু অধিকারীর পর রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়‌ই ছিলেন মমতার দ্বিতীয় মন্ত্রিসভার সবথেকে প্রভাবশালী সদস্য যিনি জোড়াফুল ছেড়ে পদ্মফুল ধরেছিলেন । ভোটের আগে সভার পর সভায় মমতা ও অভিষেককে নিশানা করেছিলেন রাজীব । শুভেন্দুর মতো চাঁচাছোলা ‌ভাষায় না হলেও ভোট প্রচারে বেরিয়ে দু’জনকে ছেড়ে কথা বলেন নি তিনি। মমতাও বন ও সেচ দফতরের দুর্নীতিতে রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায় জড়িত বলে অভিযোগ তুলতে দেরি করেন নি । মমতার ঘরের লোক‌ই নিয়োগ দুর্নীতিতে জড়িত ‌বলে প্রকাশ্যে পাল্টা অভিযোগ এনেছিলেন রাজীব । একুশের ফাইনালে ডোমজুর থেকে হারতেই অবশ্য রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিদ্রোহের বেলুন চুপসে যায় । দোসরা মে রাত থেকেই গা থেকে বিজেপির গন্ধ মুছে ফেলতে মরীয়া হয়ে ওঠেন রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়। সামাজিক মাধ্যমে বিজেপির সমালোচনা থেকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের প্রশস্তি – কোনটাই বাকি রাখেন নি সেন্ট জেভিয়ার্সের প্রাক্তনী । বারকয়েক কুণাল ঘোষের বাড়িতেও ধর্না দিয়েছেন । অবশেষে প্রতীক্ষার অবসান হল রবিবার । আগরতলায় অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের সভায় তৃণমূলে ফিরলেন রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়। কুণাল ঘোষ ও সুস্মিতা দেবের উপস্থিতিতে রাজীবের হাতে তৃণমূলের ‌পতাকা তুলে দেন অভিষেক।

আগরতলায় অভিষেকের সভায় তৃণমূলে ফিরলেন রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায় ।

ভোটের রেজাল্ট আউটের‌ পর থেকেই বিজেপির সংশ্রব কার্যত ত্যাগ করেছিলেন রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়। হেস্টিংসে তাঁর নামে বরাদ্দ করা ঘর থেকে নেমপ্লেট‌ও তুলে ফেলা হয়েছিল । যদিও কিছুদিন আগেই দলের জাতীয় কর্মসমিতিতে রাজীবের নাম নথিভুক্ত করেছিলেন বিজেপি নেতৃত্ব । কিন্তু তৃণমূলে ঢুকতে মরীয়া রাজীব তাতে বিন্দুমাত্র আগ্রহ দেখান নি। এদিন আগরতলায় অভিষেকের পাশে দাঁড়িয়ে রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, ” আমাকে ভুল বুঝিয়ে বিজেপিতে নিয়ে যাওয়া হয়েছিল । বিজেপিকে বিশ্বাস করে আমার বিশ্বাসভঙ্গ ‌হয়েছে । ” তাঁর বিজেপিতে যোগ দেওয়ার সিদ্ধান্ত ভুল ছিল ‌বলেও‌ স্বীকার করে নেন রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়। নির্বাচনী প্রচারে নিজের মুখে মমতা ও অভিষেকের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ আনলেও রবিবার আগরতলায় রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায় তা বেমালুম অস্বীকার করে বসেন । ত্রিপুরায় পুরভোটে বিজেপিকে ধূলিসাৎ করে তৃণমূলকে জেতাতে মানুষের কাছে আবেদন ‌জানান তিনি ।

কার্যত হাতেপায়ে ধরে তৃণমূলে ঢুকলেও দলে রাজীব আর আগের ‌জায়গা ফিরে পাবেন না বলেই রাজনৈতিক মহলের ধারণা। নিজের জেলা হাওড়াতেই তৃণমূলের ভেতরে তিনি একঘরে । রাজীবকে ত্রিপুরায় ‌দলের সংগঠন বৃদ্ধির কাজে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় লাগিয়ে দিতে পারেন বলে তৃণমূলের ভেতরে অনেকের অনুমান । তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যাওয়া নেতারা ফিরতে চাইলে তাঁরা যে দলে আর আগের সম্মান পাবেন না ,‌ সেই ইঙ্গিত ইতিমধ্যেই বহুবার দিয়েছেন তৃণমূলের সেকেন্ড ইন কমান্ড। খোদ মুকুল রায় তৃণমূলে যোগ দেওয়ার পর থেকে ঝিমুচ্ছেন সেখানে রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায় কোন ছাড় ।

Photo Credit – TMC official FB page.


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *