কোন আইনে মমতার রোম সফরে বাধা ? প্রশ্ন সুব্রহ্মণ্যম স্বামীর


ডেস্ক রিপোর্ট : মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের রোম সফরের অনুমতি দেয় নি কেন্দ্রীয় সরকার ।‌ কেন্দ্রের সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করেছেন বিজেপির রাজ্যসভা সদস্য ডঃ সুব্রহ্মণ্যম স্বামী । রবিবার নিজের ট্যুইটার হ্যান্ডেলে সুব্রহ্মণ্যম স্বামী লেখেন , ” কেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতাকে রোমে একটি আন্তর্জাতিক সম্মেলনে যোগ দিতে বাধা দেওয়া হল ? কোন আইনে তাঁর যাওয়া আটকানো হল ? “ বিশ্ব শান্তির লক্ষ্যে রোমে অনুষ্ঠেয় ওই সম্মেলনের আয়োজক একটি বেসরকারি সংগঠন । সম্মেলনে পোপ ফ্রান্সিস , জার্মানির চ্যান্সেলর অ্যাঞ্জেলা মের্কেল , এবং ইতালির প্রধানমন্ত্রীর পাশাপাশি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কেও আমন্ত্রণ জানানো হয়েছিল । ভবানীপুরে ভোটপর্ব মিটলেই রোমে যাওয়ার পরিকল্পনা ছিল মুখ্যমন্ত্রীর । আগামী ৭ ও ৮ অক্টোবর সম্মেলনটি হ‌ওয়ার কথা । কিন্তু শুক্রবার বিদেশ মন্ত্রক থেকে মেল পাঠিয়ে রাজ্য সরকারকে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, ” রোমের ওই সম্মেলন একটি রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর অংশগ্রহণের জন্য সামঞ্জস্যপূর্ণ নয় । ”
সুব্রহ্মণ্যম স্বামীর ট্যুইট।
বিদেশ দফতরের অনুমতি না মেলায় রোমে যাওয়া হচ্ছে না মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের । ঘটনায় বেজায় চটেছেন মুখ্যমন্ত্রী । মোদী হিংসে করে তাঁর রোমযাত্রা আটকে দিয়েছেন বলে অভিযোগ করেন মমতা । এই নিয়ে প্রতিবাদ করতে ভবানীপুরে প্রচারে গিয়ে হিন্দুত্বের তাস‌ও খেলেন তৃণমূল সুপ্রিমো । মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন , ” রোমে গিয়ে আমি হিন্দুত্বের‌ই প্রতিনিধিত্ব করতাম। আমি একজন হিন্দু নারী । বিজেপি মুখে বড় বড় হিন্দুত্বের কথা বলে অথচ প্রতিহিংসাবশত আমাকে আটকালো । “

ডঃ সুব্রহ্মণ্যম স্বামী কট্টর হিন্দুত্ববাদী নেতা। দেশের বিতর্কিত নেতাদের মধ্যে উচ্চ শিক্ষিত সুব্রহ্মণ্যম স্বামী অন্যতম । বিজেপিতে থাকলেও সাম্প্রতিক সময়ে মোদী-শাহের সঙ্গে স্বামীর সম্পর্কের রসায়ন বেশ অম্ল। ইদানিং বিভিন্ন ইস্যুতে‌ই মোদী সরকারের কঠোর সমালোচনা করতে দেখা যাচ্ছে হার্ভার্ডের পিএইচডি এই নেতাকে। মমতার রোম সফর আটকে দেওয়ায় ঠোঁটকাটা স্বামী কেন নিজের ‌দলের সরকারের সমালোচনা করলেন এই নিয়ে কৌতুহলের সৃষ্টি হয়েছে রাজনৈতিক মহলে ।


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *